জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার নিয়ম

জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার নিয়ম : আপনি যদি ইংরেজিতে জন্ম নিবন্ধন না করেন। তাহলে কিন্তুু আপনার ভবিষ্যত সময়ে অনেক ধরনের অসুবিধা হবে।

জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার নিয়ম
জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার নিয়ম

আগে শুধু বাংলা জন্ম নিবন্ধন কাজে লাগত বা করা হত কিন্তু সময়ের সাথে সাথে এখন বাংলা জন্ম নিবন্ধন এর সাথে সাথে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন এর প্রয়োজন হয়।

সে জন্য অনেকেই বাংলা জন্ম নিবন্ধন থেকে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করতে চাই । আজকের আর্টিকেল এর মাধ্যমে জানতে পারবেন কিভাবে বাংলা জন্ম নিবন্ধন থেকে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করবেন।

কেন বাংলা জন্ম নিবন্ধন থেকে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করবেন দেখুন।

  1. যখন আপনার সন্তান হবে। তখন তার পিতা মাতার জন্ম বিবন্ধন ইংরেজি তে না থাকার কারনে। সন্তানের জন্ম নিবন্ধনও ইংরেজিতে আসবে না।
  2. সেই সাথে আপনি যদি বিদেশ যেতে চান। তাহলে আপনার ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন না থাকার কারনে। আপনার বিদেশ ভ্রমনে অনেক সমস্যার সৃষ্টি হবে।
  3. এছাড়াও ইংরেজি ভাষার ব্যবাহর রয়েছে। এমন স্থান গুলোতে আপনার নানাবিধ সমস্যা দেখা দিবে। 

তাই আপনি যদি এখনও ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন না করেন। তাহলে অবশ্যই অতি দ্রুত আপনার জন্ম নিবন্ধন টি ইংরেজি তে করুন।

আর আপনি কিভাবে আপনার বাংলা জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি তে করতে পারেন। সেজন্য কিভাবে আবেদন করবেন।

আজকের আলোচনায় আমি জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার আবেদন বিষয় গুলো নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করবো।

তাই আজকের পুরো লেখাটি জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি অনলাইন আবেদন করা নিয়ে মন দিয়ে পড়ার চেস্টা করুন।

ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করা কি বাধ্যতামূলক?

অনেকের মনে প্রশ্ন জাগতে পারে যে, ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করা বাধ্যতামূলক কিনা। তো এই প্রশ্নের উত্তরে আমি বলবো, এটা বাধ্যতামূলক নয়।

তবে আপনি যদি বাংলা ভাষার ডেটাবেজ এর পাশাপাশি ইংরেজি ডেটাবেজে আপনার জন্ম তথ্য রাখতে চান। তাহলে আপনার দুই ভাষাতে জন্ম নিবন্ধন করা উচিত।

কারন, বাংলাদেশ সরকার মোট ২ টি ভাষাতে জন্ম নিবন্ধন করার সুযোগ প্রদান করেছে।

কিভাবে জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করবেন?

তো এবার আমরা জানবো, কিভাবে জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করতে হয়। আর আপনি যখন জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার আবেদন কাজটি করতে যাবেন।

তখন আপনাকে ছোট্ট একটা কাজ করতে হবে। সেটি হলো, প্রথমে আপনাকে চেক করতে হবে আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদ টি ১৭ ডিজিট এর আছে কিনা।

আর আপনি চাইলে এই বিষয়টি বাংলাদেশ জন্ম ও মৃত্যু সনদ এর ওয়েবসাইট থেকে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করে নিতে পারবেন।

তবে, আপনি যদি দেখেন যে আপনার জন্ম নিবন্ধনে ১৭ টি ডিজিট রয়েছে। তাহলে আপনি অনলাইনে সেই জন্ম নিবন্ধন সংশোধন এর জন্য আবেদন করতে পারবেন।

কিন্তু আপনার যদি ১৭ ডিজিট জন্ম নিবন্ধন না থাকে তাহলে ১৬ ডিজিট থেকে ১৭ ডিজিট করার নিয়ম দেখুন।

এই আবেদন করার পরে যখন আপনি আবেদন কপি ও প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস গুলো ইউনিয়ন পরিষদ / পৌরসভা কার্যালয়ে দিবেন।

তারপর কর্তৃপক্ষ আপনার আবেদন যাচাই করার পরে। আপনার জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার অনুমতি প্রদান করবে।

তো কিভাবে আপনি অনলাইনে আপনার বাংলা জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার আবেদন করতে হয়।

এবার আমি আপনাকে সেই নিয়ম গুলো ধাপে ধাপে দেখিয়ে দিবো। যেন, আপনি খুব সহজেই ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করতে পারেন।

1st Step: জন্ম নিবন্ধন ওয়েবসাইটে ভিজিট করুন

সবার প্রথমে আপনাকে বাংলাদেশ জন্ম ও মৃত্যু সনদ এর মূল ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে। আপনি চাইলে গুগলে সার্চ করে উক্ত সাইটে যেতে পারবেন।

আর যখন আপনি উক্ত ওয়েবসাইট এর মধ্যে প্রবেশ করবেন। তখন আপনাকে জন্ম নিবন্ধন মেনু থেকে জন্ম নিবন্ধন তথ্য সংশোধন আবেদন” এর মধ্যে ক্লিক করবেন।

আর উক্ত অপশন এর মধ্যে ক্লিক করার পর আপনাকে অন্য একটি পেজে নিয়ে যাওয়া হবে। তারপর নিচের নিয়ম গুলো ফলো করুন।

নতুবা সরাসরি এখানে ক্লিক করেও আপনি উক্ত ওয়েবসাইট এর মধ্যে প্রবেশ করতে পারবেন।

2nd step: নিবন্ধন নম্বর ও জন্ম তারিখ দিয়ে আপনার জন্ম নিবন্ধন বের করুন

এবার আপনাকে আপনার নিবন্ধন করা তথ্য গুলো অনুসন্ধান করতে হবে। সেজন্য প্রথমে আপনি আপনার জন্ম সনদ এর ১৭ ডিজিট এর নম্বরটি বসিয়ে দিন।

তার ঠিক নিচের অপশন এর মধ্যে আপনার নিবন্ধনে থাকা জন্ম তারিখ বসিয়ে দিবেন। তারপর আপনি অনুসন্ধান নামক অপশন এর মধ্যে ক্লিক করুন।

তো অনুসন্ধান করার পর একটু নিচে আপনি বেশ কিছু তথ্য দেখতে পারবেন। আর সেই তথ্য গুলো যদি আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদের সাথে মিল থাকে।

তাহলে আপনাকে “নির্বাচন করুন” নামক অপশন এর মধ্যে ক্লিক করতে হবে।

এরপর আপনার সামনে একটি বড় পপআপ উইন্ডো চলে আসবে। যেখানে বড় করে লেখা থাকবে, আপনি নিশ্চিত কিনা। তো যেহুত আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন ইংরেজিতে করতে চান।

সেহুতু অবশ্যই আপনাকে কনফার্ম এর মধ্যে ক্লিক করতে হবে। আর তারপর আপনাকে পরবর্তী পেজে নিয়ে যাওয়া হবে।

3rd step: নিবন্ধন কার্যালয়ের ঠিকানা বাছাই

উপরের কাজ গুলো সঠিকভাবে করার পর আপনাকে আপনার নিবন্ধন এর কার্যালয় সিলেক্ট করে দিতে হবে। তবে এখানে আপনি সেই ঠিকানা প্রদান করবেন।

নিবন্ধন কার্যালয়ের ঠিকানা বাছাই
নিবন্ধন কার্যালয়ের ঠিকানা বাছাই

যে ঠিকানাতে আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদ রেজিষ্ট্রেশন করেছিলেন। আর এখানে উল্লেখিত দেশ, বিভাগ, জেলা, সিটি ইত্যাদি তথ্য ‍গুলোতে যেন কোনো ধরনের ভুল না হয়।

4th step: ইংরেজি তথ্যসমূহ যুক্ত করুন

এবার আপনাকে আরো কিছু তথ্য প্রদান করতে হবে। যেমন, আপনার বিষয়, কেন আপনি জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করতে চান ইত্যাদি।

ইংরেজি তথ্যসমূহ যুক্ত করুন
ইংরেজি তথ্যসমূহ যুক্ত করুন

তো এখানে দেওয়া তথ্য গুলো ইংরেজিতে দিবেন। আর এখানে আপনার জন্ম নিবন্ধন সংশোধন এর কারন জানতে চাওয়া হবে। আপনি কারন হিসেবে, ভুলভাবে লিপিবদ্ধ হয়েছে, এটি সিলেক্ট করে দিবেন।

5th step: ঠিকানা তথ্য সমূহ ইংরেজিতে লিখুন

যখন আপনি উপরের তথ্য গুলো দিবেন, তারপর আপনার সামনে আরো একটি নতুন পেজ আসবে। এবং সেই পেজে নিচের পিকচার এর মতো একটি বড়সড় ফরম চলে আসবে।

ঠিকানা তথ্য সমূহ ইংরেজিতে লিখুন
ঠিকানা তথ্য সমূহ ইংরেজিতে লিখুন

তো এই ফরম এর মধ্যে আপনার স্থায়ী ও বর্তমান ঠিকানা প্রদান করতে হবে। মনে রাখবেন, এখানে আপনি যে সকল তথ্য দিবেন। তার প্রত্যেকটি তথ্য ইংরেজি তে দিবেন। এবং ঠিকানা গুলো একেবারে নির্ভূলভাবে দিবেন।

6th step: আবেদনকারীর তথ্য

এটি হলো, জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার সর্বশেষ ধাপ। কারন, যে ব্যক্তি আসলে অনলাইনে আবেনদ করছে। সেই ব্যক্তির তথ্য গুলো এবার প্রদান করতে হবে।

যেমন, উক্ত আবেদন যদি আপনি নিজের জন্য করেন। তাহলে আপনি আবেদনকারী ব্যক্তি হিসেবে “নিজের” সিলেক্ট করবেন। এর পাশাপাশি যোগাযোগ এর জায়গাতে আপনি আপনার মোবাইল নম্বরটি প্রদান করবেন।

সেই সাথে আপনি যদি কোনো প্রমান পত্র আপলোড করতে চান। তাহলে এখান থেকে আপনি সেই প্রমানপত্র গুলো আপলোড করে দিতে পারবেন।

আবেদনকারীর তথ্য
আবেদনকারীর তথ্য

আর সবার নিচে আপনি “ফি আদায়” নামের অপশন এর মধ্যে ক্লিক করবেন। আর তারপর ”Submit” বাটন এর মধ্যে ক্লিক করবেন। ব্যাস, হয়ে গেলো আপনার ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন এর অনলাইন আবেদন।

জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার ফি কত টাকা ?

আমরা এতক্ষন থেকে বাংলা জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার আবেনদ প্রক্রিয়া গুলো জানতে পারলাম। তো আপনি যখন ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন করবেন।

তখন আপনার নির্ধারিত ফি ধরা হবে। আর সেই ফি এর পরিমান হলো, ৪০০ টাকা থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত। আবার এর থেকে একটু কম বা বেশি হতে পারে।

কারন, এই ধরনের কাজ গুলো করার জন্য বাড়তি কিছু টাকা খরচ হয়। তবে এই বাড়তি খরচ এর পরিমান খুব সামান্য।

সাধারণ প্রশ্নের উত্তর

Q: জন্ম নিবন্ধন বাংলা থেকে ইংরেজি করার আবেদন করবো কিভাবে?

A:আপনি সরাসরি বাংলাদেশ জন্ম ও মৃত্যু সনদ এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে বাংলা জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার আবেদন করতে পারবেন।

অথবা আপনার পরিষদ ভবনে গেলে তারা আবেদন করে দিবে।

Q:জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করতে কি কি লাগে?

A: সাধারনত জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করতে খুব বেশি ডকুমেন্টস এর দরকার হয়না। তবে আপনার জন্ম সনদ এর মধ্যে থাকা তথ্য গুলো থাকতে হবে। এবং উক্ত তথ্য গুলো আবেদন করা সময় দিতে হবে।

Q:জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করতে কত টাকা লাগে?

A: আপনি যখন বাংলা জন্ম নিবন্ধন সনদ ইংরেজি করবেন। তখন আপনার ফি হিসেবে ৪০০ থেকে ৫০০ টাকার মতো খরচ করতে হবে।

আমাদের শেষকথা

দেখুন, বাংলাদেশ সরকার জন্ম নিবন্ধন এ প্রতি যথেষ্ট গুরুত্ব আরোপ করেছে। কারন, আগের দিনে হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধন থাকলেও।

এখন ডিজিটাল জন্ম নিবন্ধন করার সুযোগ সুষ্টি করেছে। এর পাশাপাশি বাংলা ও ইংরেজি এই দুটো ভাষাতে জন্ম নিবন্ধন করার সুবিধা দিয়েছে।

তাই অবশ্যই আপনার বাংলার সাথে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন আবেদন করা উচিত। আর কিভাবে আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন ইংরেজি করার আবেদন করবেন।

সেই আবেদন করার ধাপ গুলোকে খুব সহজভাবে দেখিয়ে দেওয়া হয়েছে। আশা করি, আজকের দেখানো পদ্ধতি গুলোর মাধ্যমে। আপনি খুব সহজে ইংরেজি জন্ম নিবন্ধন এর আবেদন করতে পারবেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top